Monday , 4 March 2024

এই গরমের বৈশাখী সাজ

এখন আর লাল-সাদায় সীমাবদ্ধ নেই বৈশাখ। কেউ হয়তো একেবারে ভিন্ন রঙের পোশাক পরে কপালের টিপ হাতের চুড়িতে রাখছেন লাল। কিংবা খোঁপায় সাদা ফুল পরেই বৈশাখী সাজটিকে সুন্দরভাবে ফুটিয়ে তুলছেন। সাজ যাই হোক তা যেন মানানসই এবং আরামদায়ক হয়, সেদিকে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে। আপনাদের প্রয়োজনীয়তা ও পছন্দ মাথায় রেখে বৈশাখী সাজ-পোশাক নিয়ে হাজির হলাম হোলাম।

মেকআপ

বেইজ মেকআপ অবশ্যই হালকা ও স্বাভাবিক হলে ভালো লাগবে। কারণ দিনে প্রচন্ড গরম ও রোদ থাকবে, তাই দুপুরের রোদে বের হতে চাইলে অয়েল ফ্রি মেকআপ নিন। যতটা সম্ভব হালকা ও পানি নিরোধক মেকআপ ব্যবহার করবেন। কারণ গরমে ভারী মেকআপ নিলে গরম ও ঘামে তা নষ্ট হয়ে যেতে পারে। এ ছাড়া অতিরঞ্জিত মেকআপে দৃষ্টিকটূ মনে হতে পারে। ব্লাশনের ক্ষেত্রে গোলাপি ও বাদামী রং সমন্বয় করলে ভালো লাগবে। চোখের মেকআপের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা যেতে পারে ব্রোঞ্জ, কালো, সোনালি, মেরুনের কম্বিনেশন। চোখকে আকর্ষণীয় করে তুলতে পারেন সোনালি আর লালের যুগলবন্দিতে- আইশ্যাডো ও আইলাইনার ব্যবহারের মাধ্যমে। ঠোঁটে অবশ্যই আপনার পছন্দের রংটি ব্যবহার করবেন।

কিশোরী মেয়েদের মেকআপ নেওয়ার দরকার পড়ে না। তবে রোদে বের হলে সানস্ক্রিন মেখে নিতে হবে। প্রয়োজনে স্বাভাবিক রঙের আইশ্যাডো ও লাইনার ব্যবহার করুন। আর নির্বাচন করুন আপনার জন্য উপযোগী একটি চুলের স্টাইল। যা আপনার বৈশাখী সাজের পূর্ণতা এনে দিতে পারে।

চুলের সাজ

যারা খোলা চুলে থাকতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন, তারা কানের পাশের একদিকের চুল ক্লিপ দিয়ে আটকে ফুল ব্যবহার করতে পারেন। চুলের রং ও কাটের ধরন অনুযায়ী ফুল নির্বাচন করুন। ইচ্ছে হলে শাড়ির সঙ্গে বেছে নিতে পারেন পছন্দ অনুযায়ী খোঁপা। সাজানোর জন্য করুন ফুলের ব্যবহার। শাড়ি ও সালোয়ার-কামিজের সঙ্গে লম্বা বেণী ভালোই মানায়। বৈশাখ উপলক্ষে চুলে রঙও করতে পারেন। ফলে আপনার বৈশাখী সাজটিকে আরো বেশি আকর্ষণীয় করে তুলবে, বিশেষ করে কিশোরীদের জন্য।

অন্যান্য অনুষঙ্গ

বাঙালী সংস্কৃতিতে চুড়ির উপস্থিতি অবশ্যই আছে। রেশমি চুড়ির পাশাপাশি অন্যান্য সাধারণ মানের কাচের চুড়ি জায়গা করে নিয়েছে, যাতে ব্যবহার হচ্ছে স্টোন, চুমকি, গ্লিটার ইত্যাদি। শাড়ি বা সালোয়ার-কামিজের সঙ্গে পরতে পারেন হাতভর্তি এসব চুড়ি। বাঙালির প্রাণের উৎসবে চুড়ির মতো নিখাদ বাঙালি ফ্যাশন অনুষঙ্গ বৈশাখের সাজকে সত্যিই দেয় পূর্ণতা। এ ছাড়া বৈশাখী সাজের পূর্ণতা এনে দিতে পারে কপালের লালটিপ। মুখে এঁকে নিতে পারেন লোকজ নকশা। ব্যস! হয়ে গেল আপনার বৈশাখী সাজ।

ছেলেদের ক্ষেত্রে

ছেলেদের সাজসজ্জার প্রথম কথাই হচ্ছে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা। ছেলেরা ফতুয়া, পাঞ্জাবি, টি-শার্ট যাই পরুন না কেন, তার আগে ট্যালকম পাউডার ও সানস্ক্রিন লাগিয়ে নিন পুরো শরীরে। ব্যবহার করুন ডিওডোরেন্ট। দিনটিতে প্রচন্ড গরম থাকে তাই সিনথেটিক কাপড় ব্যবহার করা ঠিক না। প্রচুর পানি ও ফলের রস বা শরবত পান করুন। সম্ভব হলে মুখে বারবার পানির ঝাঁপটা দিন। সঙ্গে অবশ্যই সানগস্নাস রাখুন।

Spread the love

Check Also

পহেলা বৈশাখ বাংলা নববর্ষ কি ও কেন জানুন সঠিক ইতিহাস

বাংলা শুভ নববর্ষ পয়লা বৈশাখ বা পহেলা বৈশাখ (বাংলা পঞ্জিকার প্রথম মাস বৈশাখের ১ তারিখ) …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *